https://www.a1news24.com
১৫ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রাত ১১:৫৮

হাঁটুর ব্যথা হলে যা করতে হবে, পরামর্শ দিলেন পুষ্টিবিদ

অনলাইন ডেস্ক: হাঁটুতে ব্যথা হলে অসহ্য অনুভব হয়। বিভিন্ন কারণেই ব্যথা হয়ে থাকে। বাসা-বাড়িতে কোনো কাজ করতে গিয়ে বা অফিসে দীর্ঘ সময় ডেস্কে বসে কাজের পর উঠার সময় হঠাৎ করেই হাঁটুতে টান বা ব্যথা অনুভব হয়। যারা খেলাধুলা করেন, তারাও এ সমস্যায় ভোগেন।

হাঁটুতে বিভিন্নভাবে ব্যথা হলে যন্ত্রণা পোহাতেই হয়। অনেক সময় এর প্রভাব পড়ে হাড়ে। এ ব্যাপারে ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন পুষ্টিবিদ নেহা সহায়। এবার তাহলে তার ভাষ্য অনুযায়ী হাঁটুর ব্যথা থেকে মুক্তির উপায় জেনে নেয়া যাক।

পানিতে উপকার: যারা খেলাধুলা করেন তাদের জন্য শরীর ফিট ও শক্তিশালী রাখা জরুরি। এ জন্য শরীরকে চাঙা ও সুস্থ রাখতে নিয়মিত পানি পান করতে হবে। শরীরের প্রয়োজনীয় মিনারেলসের চাহিদা থাকে পানিতে। যা হাড়কে মজবুত করে। রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে।

অ্যালকেলাইন ডায়েট: পুষ্টিবিদের মতে এই ধরনের ডায়েটে থাকা খাবারে অ্যালকেলাইন অর্থাৎ ক্ষারের ভাগ বেশি থাকে। শরীরে অ্যাসিড ও অ্যালকেলাইনের মাত্রা ঠিক রাখে। সাধারণত ৭.৩৫ থেকে ৭.৪৫-এর মধ্যে থাকে এর মাত্রা। আবার হজমশক্তি ভালো করার জন্যও এ ধরনের খাবার জরুরি। ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করার জন্য পেটে থাকা অম্ল পদার্থে মাত্রাও ঠিক রাখে অ্যালকেলাইন ডায়েট।

ডায়েটে দরকার সঠিক অনুপাত: এই ডায়েট করতে হলে অবশ্যই পুষ্টিবিদের পরামর্শ মেনে চলতে হবে। কেননা, অ্যাসিডিক ও অ্যালকেলাইন খাবারের মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখা সম্ভব না হলে উদ্বেগের কারণ। শরীরের ক্ষারজাতীয় উপাদান থাকলেই হবে না। হজমের জন্য অ্যাসিডিক উপাদানও প্রয়োজন। এ জন্য নিয়মিত ফল, সবজি, মেওয়া ও বীজসব সব খাবারই রাখতে হবে।

অ্যালকেলাইনজাতীয় খাবার: ফলের মধ্যে রয়েছে অ্যাভোকাডো, কলা, জাম ও খরবুজ। সবজির মধ্যে পালং শাক, ব্রুকোলি ও শশা। ড্রাই ফ্রুটস ও বীজের মধ্যে রয়েছে বাদাম, চিয়া বীজ, অলসি বীজ। এছাড়া দানা শস্যের মধ্যে ছোলা, ডাল, বাজরা রয়েছে। এসব খাবার নিয়মিত খাদ্য তালিকায় থাকলে হাড় মজবুত হবে। তবে যেকোনো সমস্যায় অবশ্যই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে চলতে হবে।

আরো..