https://www.a1news24.com
৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সন্ধ্যা ৭:৩১

সার্কাসের ভাইরাল ভিডিও প্রসঙ্গে ওমর সানী; সুযোগ পেলে যাত্রাতেও অভিনয় করব

বিনোদন ডেস্ক: এবার পবিত্র ঈদুল ফিতরকে কেন্দ্র করে মুক্তি পেতে যাচ্ছে ডজনখানেক সিনেমা। এর মধ্যে আলোচনায় ছিল চিত্রনায়ক ওমর সানী অভিনীত ‘ডেডবডি’ সিনেমা। গত কয়েকদিন সিনেমাটি নিয়ে ব্যাপক আলোচনা হলেও শেষ পর্যন্ত মুক্তি পাচ্ছে না সিনেমাটি। এ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়াসহ বিভিন্ন মাধ্যমে চলছে নানা চর্চা। একই সঙ্গে আলোচনায় উঠে এসেছে ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া ওমর সানীর একটি ভিডিও।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা যায়―একজন সহশিল্পীর সঙ্গে নাচছেন ওমর সানী। আর তাদের চারপাশে অনেক দর্শক। যা মূলত একটি সার্কাসের ভিডিও। আর সেই ভিডিওটি নিয়ে নানা আলোচনা-সমালোচনা। কেউ কেউ বলছেন, একসময়ের জনপ্রিয় নায়কের এভাবে সার্কাসে পারফর্ম করা উচিত হয়নি। আবার অনেকেই তার পেশাদারিত্ব নিয়ে ইতিবাচক মন্তব্য করেছেন।

এদিকে মঙ্গলবার (৯ এপ্রিল) ভিডিওটির ব্যাপারে দেশের একটি সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন ওমর সানী। তিনি জানান, ১৫-২০ বছর আগে থেকে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে সার্কাসে অংশ নেন তিনি। এ কারণে কখনো বিচলিতও নন। তিনি বলেন, অনেক বড় বড় তারকাও সার্কাসে পারফর্ম করেছেন। এখনো অনেকে সার্কাসে শো করেন।

ওমর সানী বলেন, চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন সাহেব, মিশা সওদাগর, শাকিল খান, অমিত হাসানরাও সার্কাসে পারফর্ম করেছেন। আবার এই সময়ের তারকা শাকিব খানও ভারতের আসামে প্যান্ডেল ঘেরা মঞ্চে নেচেছেন। এসব করলে সমস্যাই বা কোথায়? আমি তো চুরি বা ডাকাতি করছি না।

এরপরই পরিবারের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, আমার এসব কাজ নিয়ে তো আমার স্ত্রী ও ছেলে-মেয়ে কখনো মন্তব্য করে না। তাহলে অন্যদের সমস্যা কোথায়? আমি আরও করব। মানুষের খেয়ে-দেয়ে কোনো কাজ নেই। তারা এসব ভাইরাল করার ক্ষেত্রে বেশ পটু। আমার সংসার, জীবন আমাকেই চালাতে হয়। আর আমি যদি সুযোগ পাই তাহলে যাত্রাতেও অভিনয় করব। কেননা, আমি একজন কমার্শিয়াল শিল্পী। পয়সার বিনিময়ে কাজ করি এসব।

এছাড়াও এ অভিনেতা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ভারতে মিঠুন চক্রবর্তী ও গোবিন্দরাও এসব কাজ করে থাকেন। সেখানে তাদের কখনো ছোট করা হয় না। অথচ আমরা করলেই তা ভাইরাল হয়ে যায়। যে কারণে বহির্বিশ্ব আমাদের পাত্তা দেয় না। অনেকে বলেন, আপনি রেস্তোরাঁ দিয়ে তো ভাতের হোটেল খুলেছেন। ভাতের হোটেল খুললে সমস্যা কোথায়?

আরো..