https://www.a1news24.com
৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সন্ধ্যা ৭:৩৫

শুধু বিজেপিই পারে বাংলার নারীদের প্রতি অবিচার বন্ধ করতে: মোদি

অনলাইন ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, সন্দেশখালি ঘটনার দোষীদের বাঁচাতে তৃণমূল কীভাবে তার ক্ষমতা ব্যবহার করেছে তা পুরো দেশ দেখেছে। কিন্তু বিজেপির মূল লক্ষ্য নারীর ক্ষমতায়ন করা। শুধু বিজেপিই পারে বাংলার নারীদের প্রতি অবিচার বন্ধ করতে। সন্দেশখালির অপরাধীরা তাদের জীবন জেলে কাটাবে। খবর দ্য টেলিগ্রাফ।

বৃহস্পতিবার কোচবিহারে রাশ মেলা মাঠে একটি মেগা সমাবেশে ভাষণ দেওয়ার সময় এসব কথা বলেন মোদি।মোদি বলেন, শুধু বিজেপিই বাংলার নারীদের প্রতি অবিচার বন্ধ করতে পারে এবং তাই পশ্চিমবঙ্গে বিজেপিকে শক্তিশালী করতে হবে। সন্দেশখালির নারীদের সঙ্গে যা ঘটেছে তা তৃণমূলের দুঃশাসনের ফল। বিজেপির অঙ্গীকার, তারা সন্দেশখালির অপরাধীদের শাস্তি নিশ্চিত করবে।

এসময় নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন (সিএএ) সম্পর্কে ক্যানার্ড ছড়ানোর জন্য বিরোধী ব্লক ‘ইন্ডিয়া’র নিন্দা করে বলেছেন, ‘যারা মা ভারতীতে (মাদার ইন্ডিয়া) বিশ্বাস করে তাদের নাগরিকত্ব প্রদানের জন্য মোদি কি গ্যারান্টি’। ভাষণে মোদি দুর্নীতিবাজদের বাঁচানোর চেষ্টা করার জন্য বিরোধী দলগুলোর সমালোচনা করেন। তাদের শাস্তি নিশ্চিত করার বিষয়েও জোর দেন তিনি।

মোদি বলেন, ‘তারা (ইন্ডিয়া জোট) কখনোই প্রান্তিক সম্প্রদায়ের জন্য চিন্তা করেনি। এখন আমরা যখন সিএএ এনেছি, তারা গুজব ও মিথ্যা ছড়াচ্ছে। যারা মা ভারতীতে বিশ্বাসী তাদের নাগরিকত্ব প্রদান করা মোদি কি গ্যারান্টি।’

বিরোধী ইন্ডিয়া জোটের উদ্দেশ্যে মোদি বলেন, ‘বিরোধী জোট মিথ্যা ও প্রতারণার রাজনীতিতে ব্যস্ত। আমি বলছি দুর্নীতি দূর করুন, বিরোধীরা বলছে দুর্নীতিবাজদের বাঁচান। দুর্নীতিবাজদের শাস্তি নিশ্চিত করব, দরিদ্ররা যেন ন্যায়বিচার পায়। আগামী পাঁচ বছরে দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে আরও কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’নরেন্দ্র মোদি ও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়— উভয়েই বৃহস্পতিবার তাদের নির্বাচনী প্রচারের জন্য কোচবিহারে ছিলেন।

আরো..