https://www.a1news24.com
১৬ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, রাত ১২:২৫

অপূর্বর বিরুদ্ধে অভিযোগের ঘটনা পরিষ্কার করল আলফা আই

বিনোদন ডেস্ক: ছোট পর্দার সুপারস্টার জিয়াউল ফারুক অপূর্ব। সম্প্রতি এই অভিনেতার নামে চুক্তি ভঙ্গ করে অর্থ আত্মসাৎ ও শিডিউল ফাঁসানোর অভিযোগ এনেছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড (আলফা আই)।

এই প্রতিষ্ঠান থেকে ২৪টি নাটকের জন্য ৫০ লাখ টাকায় চুক্তিবদ্ধ হয়ে মাত্র ৯টি নাটকে কাজ করে ৩৩ লাখ টাকা নিয়ে সব ধরনের যোগাযোগ থেকে বিরত থাকায় প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটি আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ এনে টেলিভিশন অ্যান্ড ডিজিটাল প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপাব) এবং অভিনয় শিল্পী সংঘের কাছে বিচার চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন আলফা আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহরিয়ার করিম ভূঁইয়া (শাহরিয়ার শাকিল)। সোমবার (১১ মার্চ) অভিযোগ করেন তিনি।

এমন অভিযোগে শুরুতে নীরব ভূমিকায় ছিলেন নাটকের রোমান্টিক এই নায়ক। তবে খবরটি প্রকাশ্যে আসতেই হইচই পড়ে যায নাটকপাড়ায়। এরপর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নীরবতা ভেঙে নিজের মতামত তুলে ধরেন অপূর্ব।

এদিকে, শুক্রবার (১৫ মার্চ) এক বিবৃতিতে নিজেদের অবস্থান পরিষ্কার করেছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড (আলফা আই)।

বিষয়টি নিয়ে বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড ও অভিনয় শিল্পী মো. জিয়াউল ফারুক অপূর্ব এর মধ্যে ১৬/১০/২০২২ তারিখে একটি ‘মিডিয়া প্রোডাকশন চুক্তি’ সম্পাদিত হয়। উক্ত চুক্তি অনুযায়ী অপূর্ব একই বছরের নভেম্বরের ০১ তারিখ থেকে ৩১ অক্টোবর ২০২৩ পর্যন্ত প্রতি মাসে প্রতি মাসে ৩ দিন শিডিউল দিবে এবং উক্ত ৩ দিনে ২টি নাটকের শুটিং হবে, যদি কোনো মাসে ৩ দিন শুটিং করার শিডিউল দিতে না পারে তবে পরবর্তী মাসের সঙ্গে সমন্বয় করবেন অপূর্ব। সেই মোতাবেক সর্বমোট উপরে উল্লিখিত চুক্তি অনুসারে ২৪ টি নাটকে অভিনয়ের জন্য মোট ৫০,০০,০০০ (পঞ্চাশ লাখ) টাকায় চুক্তিবদ্ধ হয়ে ১৬/১০/২০২২ তারিখে অগ্রিম (৫০ শতাংশ) ২৫,০০,০০০ (পঁচিশ লাখ) টাকা ও পরবর্তীতে ৯/২/২০২৩ এবং ১৯/২/২০২৩ তারিখে ভিন্ন ভিন্ন ৪ টি ভাউচারে অগ্রীম বাবদ আরো ৮,০০,০০০ (আট লাখ) টাকা গ্রহণ করেন।

৩১ অক্টোবর ২০২৩ পর্যন্ত চুক্তি অনুযায়ী ২৪ টি কাজের মধ্যে ৯টি কাজ কোনোভাবে সম্পন্ন করলেও বাকি ১৫ টি কাজের ক্ষেত্রে নানা ধরনের টালবাহানা ও কালক্ষেপণ করতে থাকেন। অনেক কালক্ষেপণের পর সমাধানের লক্ষে ফেব্রুয়ারি ২০২৪ এ আলফা আই এবং অপূর্ব বৈঠকে বসে। বৈঠকে অপূর্ব সময় সংক্রান্ত কারণে ১৫ নাটক করতে অপারগতা প্রকাশ করে ও ১০টি নাটক সম্পূর্ণ করার বিষয়ে সম্মত হয় ও তা বিবেচনায় নিয়ে আলফা আই অপূর্বর মধ্যে সমঝোতা হয়।

এই অনুযায়ী অবশেষে তিনি ১০টি কাজের জন্য ১৯-২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ পর্যন্ত শিডিউল প্রদান করেন এবং আলফা আই শুটিংয়ের সমস্ত প্রস্তুতি সম্পন্ন করে। তবে দুঃখজনকভাবে অপূর্ব শুটিংয়ের সময় উপস্থিত হননি এবং সকল ধরনের যোগাযোগ করা থেকে বিরত থাকে। ফলে আলফা আই ব্যপকভাবে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয় এবং নির্দিষ্ট সময়ে প্রোজেক্ট ক্লায়েন্টকে ডেলিভারি করতে ব্যর্থ হওয়ায় প্রতিষ্ঠানের সুনাম ক্ষুণ্ণ হয়, যার ফলশ্রুতিতে আলফা আই ক্ষতিপূরণ পাওয়ার নিমিত্তে আইনি নোটিশ প্রেরণ করে এবং ৭ দিনের সময় বেঁধে দেয়। এ সময়েও কোনো ধরনের যোগাযোগ না করায় আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড টেলিভিশন অ্যান্ড ডিজিটাল প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপাব) ও অভিনয় শিল্পী সংঘের বরাবর উকিল নোটিশসহ অভিযোগ করে।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড বিশ্বাস করে প্রযোজক, পরিচালক, শিল্পী ও অন্য কলাকুশলী একে অন্যের পরিপূরক। বিষয়টি আদালতে গড়ানোর পূর্বেই টেলিভিশন অ্যান্ড ডিজিটাল প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপাব) ও অভিনয় শিল্পী সংঘের মাধ্যমে সঠিক, ন্যায়সম্মত সমাধান হবে বলে আশা রাখি।

আরো..